অস্ত্র গোলাবারুদসহ ২ উপজাতি সন্ত্রাসী আটক

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি: খাগড়াছড়ি জেলার রামগড় উপজেলার প্রেমতলায় নামক স্হান থেকে সেনাবাহিনী ও পুলিশের যৌথ অভিযানে একটি বিদেশী একে-২২ রাইফেল ও বিভিন্ন আগ্নেয়াস্ত্র ও গোলা বারুদসহ দুইজন উপজাতীয় সন্ত্রাসী আটক করা হয়েছে। রবিবার ১৪ জানুয়ারি গভীর রাতে এ অভিযান

পরিচালনা করেন যৌথবাহিনীর সদস্যরা। সেনাবাহিনী ও পুলিশ সূএে জানা জানায়, রবিবার রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে রামগড় থানাধীন দুর্গম পাহাড়ী এলাকা প্রেমতলায় গোপন সংবাদের ভিওিতে যৌথবাহিনী এক অভিযান পরিচালনা করেন সিন্ধুকছড়ি সেনা জোনের উপ অধিনায়ক মেজর তৌহিদ সালাহ উদ্দিনের নেতৃত্বে সেনাবাহিনী ও রামগড় থানার পুলিশের একটি বিশেষ দল ঐ দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন।

এসময় প্রেমতলা এলাকায় জৈনক উপজাতির একটি ঘরে তল্লাসী করতে গেলে দুজন সন্ত্রাসী পালিয়ে যাওয়ার চেস্টা করে। যৌথ বাহিনী পিছু ধাওয়া করে তাদের দুজনকেই ধরে ফেলে। ধৃতরা হচ্ছে, সুজন চাকমা(২৮) ও আব্বাই মারমা(৩৩)।

পরে ঐ ঘর তল্লাসী করে ইউএসএসআর’র তৈরী একটি একে-২২ রাইফেল, একটি বড় এলজি, একটি ছোট এলজি, একে ২২ রাইফেলের ম্যাগাজিন ১টি, একে-২২ রাইফেলের গুলি ১০ রাউন্ড, এলজি’র বুলেট ৪ রাউন্ড, রাম দা ১টি, টচ লাইট, মোবাইল ফোন সেট, চাঁদা আদায়ের রশীদ বই, ইউপিডিএফের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর লিফলেট ইত্যাদি উদ্ধাার করা হয়। অভিযানে অংশগ্রহণকারী রামগড় থানার এএসআই সিদ্দিক জানান, ভোর ৫টা পর্যন্ত এ অভিযান চলে। তনি বলেন, আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পরে এদের রামগড় থানায় হস্তান্তর করা হবে।

সেনাবাহিনীর একটি সূত্র জানায়, আটককৃতরা ইউপিডিএফের সশস্ত্র গ্রুপের সদস্য। এদের নিয়ন্ত্রণে ঐ এলাকায় চাঁদা আদায়সহ সকল অপতৎপরতা পরিচালিত হয়। তবে এ ব্যাপারে অভিযুক্ত সংগঠনটির পক্ষ থেকে কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

নিরাপওাবাহিনী সূএে জানাযায় ১২.৩০টার সময় সিন্ধুকছড়ি জোন সদরে প্রেসকনফারেন্স করবেন বলেও জানান।