বন্ধনা

এম এস প্রিন্স
আমি ফাটা দেয়ালে ফোঁটা ফুল
জীবনের গল্পে কি করব ব্যাখ্যা!
শুধু জানি পূর্ণ পেয়ালা, দক্ষিণা উষ্ণ ঢোল
ঘোর মেঘে একদিন পড়বে ঢাকা।
ওরে সখা-
ওর মাঝে আমার ধরাও সাজবে নূতন সাজে।
তবে রবে একখানা ফ্রেম, তাতেই আমি
একবারো কী ছুঁয়ে দেখবে না তুমি?
জীবনের গল্পটা ব্যাখ্যা করার কী আছে!
জনম যখন নিয়েছি বিদায় তো নেবই।
কিন্তু হৃদয় মাঝে তুমি যদি উদয় না হও
আমার কি হবে দুর্গতি?
আমি তো তোমার স্বর্গ বা আর কিছু চাই নাই
চেয়েছি শুধু তোমাকে।
আমি তো ফাটা দেয়ালেই ফোঁটা ফুল
যা ইচ্ছে কর তবু একবার জাগ।
তুমিই মানে তুমি সত্য কর প্রকাশ।
আমি তো ইচ্ছে করেই তোমাকে ডাকছি না
তোমার কল্প চারা তুমিই তো আমাতে রূপেছ।
এ জন্যে জীবন দর্শন যে সুনিবিড় সম্বন্ধ সুরে বাজে
তার মধুর মহামিলনের বাস্তবতা শুধু তুমি।
তবে তাতে অন্তহীন কৌতুহলী বিতর্কের যে ইতিহাস
তা মনের গভীরে হাজারো প্রশ্নের সৃষ্টি করলেও
এই সৃষ্টিশীলতার উত্তরে সূর্য ওঠার পূর্বে
তুমি আমার মাঝে কর প্রকাশ।
তা ভ্রান্ত বলে ফিরিয়ে দাওনা যতবার
দাওনা ফিরিয়ে দিয়ে যত সমুদ্র আঁধার
কোনো ক্লেশ নেই; ওখানেই তো স্বর্গ আমার
ওখানেই তো আমার জগৎ সংসার।
জীবনের গল্পে, আর কী ব্যাখ্যা দেব!
আমি তো ফাটা দেয়ালে ফোঁটা ফুল।
তাই বন্ধনা করি গো আমি তোমার তলে
সোনালী নবীন যুবাকাল ফুটিয়ে তুল এ আধারে।
নইলে জনম জনমী যে বৃথা
জীবন সঙ্গীতে আমার শিঙ্গায় ধ্বনিত হয় অমন সজীবতা।
রয় না কিছু গল্পে। খ্যাতিমান সূর্য সেও মিটি মিটি তারা
উল্কার বেশে তাও যদি ঝরে-
ভালো বুঝ কোন কাফনে হবে মোড়া।