শেষ হল সপ্তাহব্যাপি কমরেড মনিসিংহ মেলা

দুর্গাপুর প্রতিনিধি: জেলার দুর্গাপুরে টঙ্ক শহীদ স্মৃতি স্তম্ভ প্রাঙ্গনে কমরেড মণিসিংহের ২৭ তম মৃত্যুবার্ষিকীকে কেন্দ্র করে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও মেলা উদ্যাপন কমিটির আয়োজনে , সপ্তাহব্যাপি শনিবার গভীর রাতে শেষ হল মণিসিংহ মেলা।

মেলার সমাপনী পর্বে পৌর মেয়র আলহাজ্ব মোঃ আব্দুস ছালাম এর সভাপতিত্বে প্রতিযোগীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ পূর্বে আলোচনায় অংশ নেন মেলা উদ্যাপন কমিটির আহবায়ক প্রবীণ রাজনীতিবিদ বর্ষীয়ান জননেতা দূর্গা প্রসাদ তেওয়ারী, প্রয়াত কমেরড মণিসিংহের একমাত্র পুত্র ডাঃ দিবালোক সিংহ, সিনিয়র এএসপি সার্কেল দুর্গাপুর শিবলী সাদিক, দুর্গাপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ মিজানুর রহমান আকন্দ, সিপিবি‘র সাধারণ সম্পাদক মীর আলকাছ উদ্দিন, আয়কর উপদেষ্টা সুজন সভাপতি অজয় সাহা, বীরমুক্তিযোদ্ধা সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব রুহুল আমীন চুন্নু, জেলা পরিষদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শফিক, উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি, সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব মোঃ আলী আজগর, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল্ল্যাহ হক, জেলা ছাত্রলীগ নেতা দেওয়ান জনি প্রমূখ।

মেলায় কমরেড মণি সিংহের জীবন, রাজনীতি ও কৃষকের টঙ্ক প্রথা বিরোধী আন্দোলন। ‘‘কৃষক শ্রমিক আন্দোলন ও কমরেড মণিসিংহ’’, ‘ছাত্র ও যুবকের গনতান্ত্রিক সংগ্রাম:স্বপ্ন ও সম্ভাবনা, ‘মহান রুশ সমাজতান্ত্রিক বিপ্লবের শতবর্ষ: বর্তমান প্রসঙ্গিতা, বাংলাদেশের নারী সমাজের অগ্রগতি: আগামী সম্ভাবনা ও চ্যালেঞ্জ সমূহ, আদিবাসীদের অধিকার ও সংগ্রাম, ইত্যাদি বিষয়ের উপর ধারাবাহিক ভাবে আলোচনায় অংশ নেন দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের নেতা, বুদ্ধিজীবি ও অর্থনীতিবিদগন।

এ মেলা চলাকালে চিরঞ্জীব কমরেড মণিসিংহের ২৭ তম প্রয়ান দিবসে শ্রদ্ধা জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বানী পাঠ করে শোনান সিপিবি‘র উপজেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মীর আলকাছ উদ্দিন।

এবং প্রতিদিনই মণিসিংহের জীবন ,আচরনকে কেন্দ্র করে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা ও নাটক উপস্থাপিত হয়েছে। মেলার সমন্বয়কারী ডাঃ সোহরাব হোসেন প্রতিনিধিকে জানান, মেলায় বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে প্রায় ৬শতাধিক বিভিন্ন রকমের স্টল ছিল মেলার বিশেষ আকর্ষন।

ময়মনসিংহ বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতালেন সহযোগিতায় ১শত ৬০জন রোগীকে চোখের ছানি অপারেশন করা হয়েছে। ডাঃ রমজান হোসেন জানান, বিনামূল্যে ৩শতাধিক মানুষের ব্লাড গ্রুপ নির্নয় করা হয়েছে। সর্বোপরী পুরো মেলা প্রাঙ্গন ছিল সিসি ক্যামেরার আওতাধীন শান্তিপূর্ন পরিবেশে এ মেলার সমাপ্ত হয়েছে।

প্রিন্স, ঢাকা