স্মিথের ডাবল সেঞ্চুরিতে ম্যাচে নিয়ন্ত্রণ অসিদের

নিউজ ডেস্ক: চলতি অ্যাশেজ সিরিজে স্বপ্নের মত কাটছে অসি অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথের। পার্থের তৃতীয় টেস্টে অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ যে ইনি!সটি উপহার দিলেন তাকে অতিমানবীয় বললেও হয়তো কম বলা হবে। তৃতীয় দিন শেষে ২২৯ রানে অপরাজিত অসি অধিনায়ক।

স্মিথ যখন ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন তখন ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নিলেন এর আগে ২১ টেস্ট খেলা মিচেল মার্শ। তিনিও ডাবল সেঞ্চুরির খুব কাছাকাছি আছেন।

দ্বিতীয় দিন শেষে ৯২ রানে অপরাজিত স্টিভেন স্মিথ আজ দিনের শুরুতেই ১৩৮ বলে তিন অংকে পৌঁছান। এটি টেস্টে ক্যারিয়ারের ২২তম সেঞ্চুরি তার। সেঞ্চুরির পর যেন আরও একটু বিধ্বংসী হয়ে ওঠেন স্মিথ। ২০৫ বলে পৌঁছে যান দেড়শ রানের মাইলফলকে। এতেও তাকে থামানো যায়নি। অজি অধিনায়ক যেন পণ করেছেন, আজ তিনি ক্যারিয়ারসেরা ইনিংসটি খেলবেন। একটু ধৈর্য্য ধরে তৃতীয় সেশনের শুরুতেই ৩০১ বলে পৌঁছে যান ডাবল সেঞ্চুরির ম্যাজিক ফিগারে।

আগেও একটি ডাবল সেঞ্চুরি আছে স্মিথের। ২০১৫ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে লর্ডসে ২১৫ রান করেছিলেন তিনি। আজ নিজেকেই ছাড়িয়ে গেলেন অজি অধিনায়ক। ২২৯ রানে অপরাজিত থেকে দিন শেষ করেছেন তিনি। তাকে অনুসরণ করেই যেন ক্যারিয়ারের ২২তম টেস্টে প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নিলেন পিটার হ্যান্ডসকম্বের জায়গা দলে সুযোগ পাওয়া মিচেল মার্শ। ১৩০ বলে তিন অংকে পৌঁছান তিনি। দিনশেষে ২৩৪ বলে ১৮১ রানে অপরাজিত তিনি।

গত মার্চে কাঁধে অস্ত্রোপচারের পর কয়েক মাস মাঠের বাইরে ছিলেন মার্শ। এরপর অ্যাশেজ সিজিরে প্রত্যাবর্তন করেই সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে চমক দিলেন। শুধু তাই নয়, পঞ্চম উইকেটে স্মিথের সঙ্গে তিনশ রানের জুটি গড়ে ইংলিশ বোলারদের রাতের ঘুম হারাম করে দিয়েছে স্মিথ-মার্শ। দিনশেষে অসিদের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ৫৪৯ রান। ইংলিশদের থেকে তারা ১৪৬ রানে এগিয়ে। আগামীকাল চতুর্থ দিনে হয়ত মার্শের প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি হয়তো দেখতে যাচ্ছে অ্যাশেজ।