আপনাদের ঋণ শোধ করতে এসেছি: পরিকল্পনা মন্ত্রী

 

কুমিল্লা সংবাদ দাতা: আমি কিছুদিন আগে অসুস্থ ছিলাম। সিঙ্গাপুরে গিয়ে ছোট একটি অপারেশান করেছিলাম, তখন আপনারা আমার জন্য মসজিদে মসজিদে দোয়া করেছিলেন। এ ঋণ শোধ করতেই আজ আমি আপনাদের মাঝে এসছি। সবাই সৎ থেকে রাজনীতি করুন। রাজনীতি এখন ব্যবসায়ে পরিণত হয়েছে। এ ধরণের রাজনীতি আমি পছন্দ করি না। মানুষকে মনের মাধুরী মিশিয়ে ভালোবাসুন।

আজ বুধবার (৬ সেপ্টেম্বর) দুপুর ২টায় কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার হেসাখাল বাজার উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে বিদ্যুৎ উদ্বোধনী এক অনুষ্ঠানে উপজেলার আদ্রা ও হেসাখাল ইউনিয়নের ২১৩০ পরিবারের মাঝে বিদ্যুৎ সংযোগ দিতে প্রায় ৩৫ কিলোমিটার নির্মিত বৈদ্যুতিক লাইনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এমপি এসব কথা বলেন তিনি।

মন্ত্রী আরো বলেছেন, বাংলাদেশের একটি ঘরও আর অন্ধকারে থাকবেনা। আওয়ামীলীগ সরকার ঘরে ঘরে বিদ্যুতের আলো জ্বালাবে। এ সরকার উন্নয়নের সরকার। ২০৩০ সালের মধ্যে বাংলাদেশ অর্থনৈতিকভাবে ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত শক্তিশালী দেশ হবে। উন্নত বিশ্বের দরবারে বাংলাদেশ এগিয়ে যাবে।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন- আমি আপনাদের নিকট অনেক কৃতজ্ঞ। নাঙ্গলকোটে অনেক ভালো মানুষ আছে। কিন্তু কতিপয় খারাপ মানুষও আছে। আপনারা তাদেরকে চিনেন। তাদেরকে সীমার বাহিরে উঠতে দেয়া যাবে না। আমি ভালো মানুষের জন্য রাজনীতি করি।

ওই অনুষ্ঠানে নাঙ্গলকোট উপজেলার হেসাখাল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আহবায়ক মাস্টার মো. আবদুল বাতেনের সভাপতিত্বে বক্ত্য রাখেন, নাঙ্গলকোট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সামছুউদ্দীন কালু। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. দাউদ হোসেন চৌধুরী, কুমিল্লা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-৪ এর জেনারেল ম্যানেজার (জিএম) এএসএম গিয়াস উদ্দিন, নাঙ্গলকোট জোনাল কার্যালয়ের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) টিএম মেজবাহ উদ্দিন, নাঙ্গলকোট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আইয়ুব, নাঙ্গলকোট পৌরসভার মেয়র আবদুল মালেক, উপজেলা ভাইস-চেয়ারম্যান আবু ইউছুফ ভুঁইয়া, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান সমিতির সভাপতি আবু তাহের, উপজেলা আওয়ামীলীগ যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবুল খায়ের আবু, হেসাখাল ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জালাল আহাম্মদ ভূঁইয়া, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আবুদর রাজ্জাক সুমন ও সাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুক মামুন প্রমুখ।