জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান সংকটের সমাধান

নিউজ ডেস্ক: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্যের বাসভবন ভাঙচুরের ঘটনায় শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে করা মামলা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টা থেকে রাত ১টা পর্যন্ত আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের আলোচনা শেষে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

এদিকে প্রশাসন মামলা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নেয়ায় সকল আন্দোলন কর্মসূচি প্রত্যাহার করা হয়েছে বলে জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি ইমরান নাদিম। তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আমাদের দাবি মেনে নিয়েছে। তাই আমরা আন্দোলন থেকে সরে এসেছি। বৃহস্পতিবার প্রশাসনিক ভবনে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনায় শিক্ষার্থীদের পক্ষে ২০ জন প্রতিনিধি অংশ নেন। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষে ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম, উপ-উপাচার্য আবুল হোসেন ও আমির হোসেন, ট্রেজারার মনজুরুল হক, প্রক্টর তপন কুমার সাহা, রেজিস্ট্রার আবু বকর সিদ্দিক প্রমুখ।

বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সহযোগী অধ্যাপক ফরিদ আহমেদ বলেন, আমরা সবসময় সম্মানজনক সমাধান চেয়েছি। আর এ ক্ষেত্রে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন, শিক্ষক-শিক্ষার্থীর সমর্থন পেয়েছি। যা বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।

প্রসঙ্গত, ২৬ মে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই শিক্ষার্থী নিহতের ঘটনাকে কেন্দ্র করে মহাসড়ক অবরোধ ও উপাচার্যের বাসভবন ভাঙচুরের ঘটনায় ৫৬ শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে মামলা করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এর পর থেকে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে একের পর এক আন্দোলন কর্মসূচি চালিয়ে আসছিল শিক্ষার্থীরা।