ছেলের রুশ বৈঠকের কথা জানতেন না ট্রাম্প

নিউজ ডেস্ক:  ২০১৬ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বর্তমান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের পুত্র ট্রাম্প জুনিয়রকে তথ্য দিয়ে সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন রুশ আইনজীবি নাতালিয়া ভেসলনিস্কায়া। আর সে আশ্বাসেই গত বছরের জুনে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়ে তাদের মধ্যে। তবে ট্রাম্প জুনিয়র জানান, তার বাবা এই গোপন বৈঠক সম্পর্কে কিছুই জানতেন না।

ক্রেমলিনের সাথে অবৈধভাবে যোগাযোগ রাখা ওই আইনজীবীকে স্বাগত জানিয়ে পাঠানো ইমেইলও তিনি প্রকাশ করেছেন। তার ভাষ্যমতে, নাতালিয়া বলেছিলেন, তার কাছে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হিলারী ক্লিনটন সম্পর্কে তথ্য আছে। আর ট্রাম্পপুত্রও তার বাবা এবং হোয়াইট হাউজের মধ্যে থাকা একমাত্র বাধা হিলারি ক্লিনটনকে যেভাবেই হোক দূর করতে চাইছিলেন। তবে সেই বৈঠকের পর তিনি বুঝতে পারেন, নাতালিয়ার দেয়া তথ্যগুলো সম্পূর্ণ অর্থহীন ছিল।

বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রাশিয়ার অনাকাঙ্ক্ষিত হস্তক্ষেপের বিষয়ে তদন্ত চলছে। এর মধ্যেই রুশ সহযোগিতা চাওয়ার এই চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস করলেন ট্রাম্প জুনিয়র।

২০১৬ সালের ৯ জুন ট্রাম্প টাওয়ারে আয়োজিত এই গোপন বৈঠকে ট্রাম্পপুত্রের সাথে ট্রাম্পজামাতা জেরাড কুশনার এবং ট্রাম্পের প্রচারণা শিবিরের তৎকালীন প্রধান পল জে মানাফোর্ট উপস্থিত ছিলেন।

তবে চলতি বছরের মার্চে এই ট্রাম্প জুনিয়রই নিউইয়র্ক টাইমসের কাছে রাশিয়ার কোনো প্রতিনিধির সাথে সাক্ষাতের কথা অস্বীকার করেছিলেন।

যুক্তরাষ্ট্রের সাধারণ নির্বাচনকে রাশিয়া প্রভাবিত করেছে কিনা- এ নিয়ে তদন্ত করছে এফবিআই ও কংগ্রেস। সম্প্রতি রাশিয়ার সাথে সংযোগ আছে সন্দেহে বরখাস্ত করা হয়েছে এফবিআই প্রধান জেমস কোমিকে। তবে রাশিয়ার জড়িত থাকার বিষয়টি নিয়ে এখনো নিশ্চিত হতে পারেননি তারা।