বাংলাদেশকে নিয়ে ভারতে ত্রিদেশীয় সিরিজ!

নিউজ ডেস্ক: ২০১৩ সালে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে দক্ষিণ আফ্রিকা গিয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল। এই বছরের শেষদিকে চারটি টেস্ট, সাতটি ওয়ানডে ও তিনটি টি২০ ম্যাচ খেলার জন্য দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যাওয়ার কথা রয়েছে ভারতের। তবে এবারও নাকি প্রোটিয়াদের বিপক্ষে এই সিরিজকে খানিক কাটাছেঁড়া করতে চাইছে ভারতীয় বোর্ড বিসিসিআই।

দক্ষিণ আফ্রিকার লম্বা সফর কয়েকদিন পিছিয়ে, কিছু ম্যাচ কমিয়ে দিয়ে নিজেদের দেশে ত্রিদেশীয় সিরিজ আয়োজনের কথা ভাবছে ভারত। সিরিজের অন্য দুটি দল হিসেবে ভারতের প্রাথমিক পছন্দ বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ড। আগামী আগস্ট-সেপ্টেম্বরে দেশের মাটিতে অস্ট্রেলিয়াকে আতিথ্য দেবে বাংলাদেশ, খেলবে দুই টেস্টের সিরিজ। এরপর সেপ্টেম্বরের শেষদিকে দক্ষিণ আফ্রিকায় পূর্ণাঙ্গ সফরে খেলবে দুটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টি২০। দুটি সিরিজের জন্য গত সপ্তাহে ২৯ সদস্যের প্রাথমিক দলও ঘোষণা করেছে বিসিবি। 

ভারত যদি আসলেই ত্রিদেশীয় সিরিজ আয়োজন করে, সেক্ষেত্রে বড় দুই প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে সিরিজ খেলতে পারাটা বাংলাদেশের জন্য বেশ ভালো একটা ব্যাপারই হবে। তবে সিরিজ আয়োজনের ব্যাপারে বিসিসিআইর ভাবনার কারণও আছে বিস্তর। ভারতীয় গণমাধ্যম নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানায়, ত্রিদেশীয় সিরিজ আয়োজনের ব্যাপারটি মূলত এখনও ‘পরিকল্পনাধীন’। এই সিরিজ আয়োজনের জন্য নাকি প্রোটিয়াদের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ কয়েকদিন পিছিয়ে দিতে চাইছে বিসিসিআই।

ভারত ফেরার কিছুদিন পরই পূর্ণাঙ্গ সফরে দক্ষিণ আফ্রিকায় যাবে অস্ট্রেলিয়া। সেক্ষেত্রে ভারত সিরিজ পেছানো হলে অস্ট্রেলিয়া সিরিজের সূচিও এদিক-ওদিক হতে পারে। তবে সিরিজটা হলে বাংলাদেশের সামনে নির্ধারিত সূচির বাইরে বাড়তি কিছু ম্যাচ খেলার সুযোগ আসবে, ক্রিকেটপ্রেমীদের একমাত্র আশার কথা হতে পারে সেটিই।