অনিয়মে যৌথ প্রযোজনার বিরুদ্ধে ফেসবুক প্রোফাইলে প্রতিবাদ

নিউজ ডেস্ক: এখন যেসব যৌথ প্রযোজনায় ছবি নির্মাণ হচ্ছে, তাতে নীতিমালা মানা হচ্ছে না। এই অবস্থা কয়েক বছর ধরে লক্ষ করা যাচ্ছে। ফলে একপক্ষ লাভবান হচ্ছে, আরেক পক্ষ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

অনিয়মের এ যৌথ প্রযোজনা নিয়ে গেল কয়েক মাস ধরেই সোচ্চার চলচ্চিত্র পরিবার। ঢাকাই ছবির ১৪টি জোটের সমন্বয়ে গঠিত বাংলাদেশ চলচ্চিত্র ঐক্যজোট বা বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিবার যৌথ প্রতারণা বন্ধ করে দেশীয় ছবি ও ইন্ডাস্ট্রিকে রক্ষার জন্য নানা কর্মসূচি পালন করছেন। এরই ধারাবাহিকতায় আগামীকাল রোববার এফডিসিতে বেলা ১১টা থেকে প্রতিবাদ সমাবেশের ডাক দিয়েছেন তারা। সেখানে উপস্থিত থাকবেন চলচ্চিত্রের প্রযোজক, পরিচালক, শিল্পী-কলাকুশলীরা।

শুধু তাই নয়, যৌথ প্রযোজনার নামে যৌথ প্রতারণার বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছে ফেসবুকেও। অনেক শিল্পী, নির্মাতা, কলাকুশলী যার যার অবস্থান থেকে প্রতিবাদ করছেন। ফেসবুকে নিজেদের প্রোফাইল পিকচার পরিবর্তন করছেন সবাই একটি ছবি দিয়ে। কেউ কেউ এটি শেয়ার করছেন, বিভিন্ন জনের স্ট্যাটাসে কমেন্টস হিসেবে দিচ্ছেন। গতকাল রাত থেকে এ ছবিটি রীতিমতো ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে গেছে।

কালো রঙের সেই ছবিটির মাঝখানে রয়েছে বিপ্লবের প্রতীক একটি হাতের মুষ্টি। সেখানে দেয়া আছে দুটি বার্তা। যৌথ প্রযোজনার নামে যৌথ প্রতারণা বন্ধ করো। অন্যটি হলো ‘বাংলাদেশের চলচ্চিত্র রক্ষায় এগিয়ে আসুন’।

চলচ্চিত্র নির্মাতা মালেক আফসারী, স্বপন চৌধুরী, চিত্রনায়িক রেসি, জায়েদ খান, মিশা সওদাগর, ইমন, শান, প্রযোজক খসরু ছাড়াও অনেকেই ফেসবুকে নিজেদের প্রোফাইলের ছবিতে প্রতিবাদের প্রতীকী ছবিটি ব্যবহার করছেন।

চলচ্চিত্র ঐক্য জোটের আহ্বায়ক ও পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুজজার বলেন, ‘যৌথ প্রযোজনার নীতিমালার ৬ এর ‘গ’ অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে- যৌথ প্রযোজনার ছবি নির্মাণে দুদেশের সমান সংখ্যক মুখ্য শিল্পী, টেকনিশিয়ান, শুটিং লোকেশনের অনুপাত থাকতে হবে। নইলে সেটা হবে যৌথ প্রযোজনার নীতিমালার বাইরে। এখন যেসব ছবি নির্মাণ হচ্ছে, সেগুলো কোনোটাই নিয়ম মানছে না। আসছে ঈদের জন্য মুক্তির অপেক্ষায় থাকা ‘বস ২’ ও ‘নবাব’ ছবি দুটির বিরুদ্ধেও এই অভিযোগ রয়েছে। তারপরও ‘বস ২’ কে অজানা কোনো কারণে মুক্তির ছাড়পত্র দেয়া হচ্ছে। তাই এই কঠিন আন্দোলনের সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘নিয়ম মেনে যৌথ প্রযোজনায় ছবি নির্মাণ হলে আমরা সেটাকে সাধুবাদ জানাব। অনিয়মের যৌথ প্রযোজনার ছবি এদেশে নির্মাণ করতে দেয়া হবে না।’