হাওরে বিপর্যয়ের কারণ খুঁজতে গণতদন্ত কমিশন

নিউজ ডেস্ক: হাওরের সাম্প্রতিক মহাবিপর্যয়ের কারণ এবং এর সমাধানে স্থায়ী পথ খুঁজতে অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীকে প্রধান করে একটি গণতদন্ত কমিশন গঠন করা হয়েছে। ‘হাওরের পাশে বাংলাদেশ’ নামে একটি সংগঠনের উদ্যোগে এই কমিশন গঠন করা হয়েছে।

শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ২৮ সদস্যের গণতদন্ত কমিশন গঠনের তথ্য জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে গণতদন্ত কমিশনের সদস্য সচিব হাসনাত কাইয়ুম জানান, হাওরের মহাবিপর্যয়ের প্রকৃত কারণ এবং সমস্যার স্থায়ী সমাধানের পথ ও পদ্ধতি অনুসন্ধানে গণতদন্ত কমিশন গঠন করা হয়েছে। দেশ-জাতি ও প্রকৃতির প্রতি দায়বোধ থেকে এই কমিশন গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, এই কমিশন হাওরাঞ্চল সফর করে হাওরবাসীর মতামত সংগ্রহ, পানি, মৎস্য, কৃষি, যোগাযোগ, শিক্ষা ও স্বাস্থ্য ব্যবস্থাবিষয়ক তথ্য-উপাত্ত ও গবেষণাকর্ম পর্যালোচনা করবে। সরকারি-বেসরকারি উন্নয়ন নীতি ও কর্মকাণ্ড বিশ্লেষণ করে দেশে ও দেশের বাইরে অবস্থানরত সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞদের মতামত সংগ্রহ করবে। নদী, পানি, প্রকৃতি সংশ্লিষ্ট দেশীয় এবং আন্তর্জাতিক আইন ও রীতি পর্যবেক্ষণ করবে। এসবের আলোকে হাওর সমস্যার স্থায়ী সমাধানের রূপরেখা দেশবাসীর সামনে তুলে ধরা হবে।

কমিশনের অন্য সদস্যরা হলেন— স্বপন আদনান, আনু মুহাম্মদ, বদরুল ইমাম, খালেকুজ্জামান, রিজওয়ানা হাসান, হালিম দাদ খান, অধ্যাপক হারুন রশীদ, শাকিল আখতার, সৈয়দ আলী আজহার, পাভেল পার্থ, আনোয়ারুল ইসলাম, আবদুল্লাহ আল মামুন, আবদুল মতিন, শেখ রোকন, মোশাহিদা সুলতানা রীতু, জাকিয়া শিশির, সাদিয়া জেরীন পিয়া, জ্যোতির্ময় বড়ুয়া, আবুল হোসেন রুবেল, জাকির হোসেন, কফিল আহমেদ, অরুপ রাহী, ফিরোজ আহমেদ, কাফি রতন, আবদুল্লাহ শাহরিয়ার সাগর এবং জহিরুল ইসলাম।

অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, হাওর সমস্যার স্থায়ী সমাধানের পথ অনুসন্ধানে এই গণতদন্ত কমিশন ভূমিকা রাখবে। হাওরের সব জলমহালের ইজারা বাতিল করে ভাসান পানিতে মাছ ধরার অবাধ অধিকার দেওয়ার দাবি জানান তিনি।

অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেন, এই কমিশন হাওর সমস্যার পাশাপাশি দেশের উন্নয়নের ধরন কী হওয়া উচিত সে বিষয়েও কাজ করবে। তিনি বলেন, শুধু অবকাঠামো নির্মাণ করলেই উন্নয়ন হয় না; উন্নয়ন হতে হবে প্রাণ ও প্রকৃতিকে রক্ষা করে। কিন্তু আমাদের দেশে রাস্তাঘাট ও আর ভবন বানিয়েই উন্নয়নের ঢোল বাজানো হচ্ছে। এটা ভোটের রাজনীতির জন্য ভালো। এতে জনগণকে বাদ রেখে সম্পদ লুণ্ঠনের সুযোগ পাওয়া যায়।

পরিবেশ আইনজীবীদের সংগঠন বেলার প্রধান নির্বাহী রিজওয়ানা হাসান বলেন, হাওর একটি স্বতন্ত্র ভূতাত্ত্বিক গঠন। এটা শুধু বাংলাদেশেই আছে। তাই এ অঞ্চলের উন্নয়ন কার্যক্রমও এর প্রকৃতির সঙ্গে মানানসই হতে হবে।

প্রকৌশলী ম. ইনামুল হক, জ্যোতির্ময় বড়ুয়া, স্বপন আদনানও সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন।